আবারও ধোনির মাথার খেল দেখল আইপিএল

ধোনি কে বলা হয় মিঃ কুল। নিজের আবেগ নিয়ন্ত্রণ করে মাঠে পরিস্থিতে বুঝে সিদ্ধান্ত নিতে পারেন বলেই অধিনায়ক হিসেবে তার ঝুড়ি নেই। গতকাল আইপিএলে মুম্বাইয়ের বিপক্ষে আবারো নিজের বিচক্ষণতার পরিচয় দিলেন চেন্নাইয়ের অধিনায়ক।তাঁর একসময়ের জাতীয় দল সতীর্থ বীরেন্দর শেবাগ তো রীতিমতো মুগ্ধ। আইপিএলে যদি কারও ক্ষুরধার মস্তিষ্ক থাকে, সেটি এম এস ধোনির বলেই মনে করেন ভারতের সাবেক এ ওপেনার।

মাঠে ধোনির উপস্থিত বুদ্ধি এবং সঠিক সিদ্ধান্ত নেওয়ার দক্ষতায় শেবাগ বরাবরই মুগ্ধ। ক্রিকবাজের সঙ্গে আলাপচারিতায় শেবাগ বলেন, ‘কোনো সন্দেহ নেই, দারুণ অধিনায়কত্ব করেছেন ধোনি। ম্যাচের আগে তার কোনো পরিকল্পনা থাকে না। মাঠের পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করে সে সিদ্ধান্ত নেয়। প্রতিপক্ষ ব্যাটসম্যানদের দেখে বোলারদের সেভাবে তৈরি করে। এমনভাবে খেয়াল করে, কোনো ব্যাটসম্যান যদি পেসারদের বিপক্ষে ভালো হন, স্পিনার নিয়ে আসে আক্রমণে কিংবা তার উল্টোটা।’

দুবাইয়ে আগে ব্যাট করতে নামা চেন্নাই সুপার কিংস ২৪ রানে ৪ উইকেট হারিয়ে বিপদে পড়েছিল। ধোনি নিজেও ব্যাট হাতে ভালো করতে পারেননি। ৫ বলে করেন ৩ রান। ওপেনার রুতুরাজ গায়কোয়াড়ের ৫৮ বলে ৮৮ রানে ৬ উইকেটে ১৫৬ রান তুলেছিল চেন্নাই।মুম্বাই ইন্ডিয়ানস মাঠে নেমেছিল নিয়মিত অধিনায়ক রোহিত শর্মাকে ছাড়াই। তাদের বিপক্ষে চেন্নাই অধিনায়ক ধোনি তাঁর বোলারদের ঘুরিয়ে–ফিরিয়ে এমনভাবে ব্যবহার করেন যে মুম্বাই ১৩৬ রানের বেশি করতে পারে নি।

শেবাগ উদাহরণও দেন, ‘ডোয়াইন ব্রাভোর বিপক্ষে সে যখন ফিল্ডিং সাজাল, (ছোট) বৃত্তের ভেতর চার ফিল্ডার ছিল এক-দুই রান ঠেকাতে। এতে উইকেট নেওয়ার সম্ভাবনা বাড়ে এবং ঈশান কিষাণকে তুলে নেওয়ায় সেটাই ঘটে। সে অবশ্যই ভালো অধিনায়ক, বোলাররাও তার কথা মেনে বল করেছে। এই লিগে কারও যদি ক্ষুরধার মস্তিষ্ক থাকে, সেটা ধোনির।’

এছড়াও কাইরন পোলার্ডের আউটকে কাল ম্যাচের ‘টার্নিং পয়েন্ট’ বলে মনে করেন শেবাগ। সেখানেও ধোনি কে কৃতিত্ব দিলেন শেবাগ,তিনি বলেন পোলার্ড স্পিনে ভালো খেলে তখন স্পিনারকে না এনে হ্যাজলউডকে নিয়ে আসার সিদ্ধান্তটা ম্যাচের মোড় ঘুরিয়ে দেয়।

About ashik rakib

Check Also

আরব আমিরাতে এমন খারাপ দিন দেখেনি রশিদ খান

এবারের এশিয়া কাপের আগে সংযুক্ত আরব আমিরাতের মাটিতে টি-টোয়েন্টি খেলেছেন ১৯টি। কিন্তু এমন দিন দেখতে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *