স্টাম্প মাইক বিতর্ক-ঃ বড় শাস্তি কি হতে পারে কোহলীদের ?

রিভিউ নিয়ে বেঁচে যান ডিন এলগার। তার পরেই ভারতীয় দলের একাধিক ক্রিকেটার স্টাম্প মাইকের কাছে গিয়ে ডিআরএস নিয়ে অভিযোগ জানাতে থাকেন। বিরাট কোহলী-সহ ভারতীয় ক্রিকেটারদের অভিযোগ ছিল পক্ষপাতিত্ব করা হয়েছে। ইচ্ছাকৃত ভাবে আউট দেওয়া হয়নি বলে মনে হয় লোকেশ রাহুলদের। তাঁদের আচরণ আবেগের বহিঃপ্রকাশ বলে ঠান্ডা করার চেষ্টা করেন বোলিং কোচ পরশ মামব্রে। কিন্তু তাতে কি ঠান্ডা হবে? শাস্তি হবে না তো কোহলীদের?

দক্ষিণ আফ্রিকার সামনে ২১২ রানের লক্ষ্য রাখে ভারত। ব্যাট করতে নেমে এডেন মার্করামকে হারালেও এলগার এবং কিগান পিটারসেন জুটি গড়তে শুরু করেন। দক্ষিণ আফ্রিকার ইনিংসের ২১তম ওভারে অশ্বিনের বল এলগারের পায়ে লাগে। ভারতীয় দল আবেদন করলে মাঠের আম্পায়ার মারিয়াস ইরাসমাস আউটের সিদ্ধান্ত দেন। সঙ্গে সঙ্গে রিভিউ নেন এলগার। সেখানে দেখা যায় বল উইকেটের উপর দিয়ে যাচ্ছে। কিন্তু প্যাডের যেখানে বল লেগেছিল, সেখান থেকে বল অতটা উঁচুতে কী করে উঠতে পারে তা বুঝতে পারছিলেন না কোহলীরা। তাঁদের চোখে মুখে স্পষ্ট বিরক্তি ছিল।

সেই সময় স্টাম্প মাইকের কাছে গিয়ে কথা বলতে দেখা যায় বিরাট কোহলীদের। ভারত অধিনায়ক বলেন, “দারুণ ডিআরএস, খুব ভাল খেললে।” লোকেশ রাহুল বলেন, “গোটা দেশ খেলছে ১১ জনের বিরুদ্ধে।” কোহলীকে ফের বলতে শোনা যায়, “শুধু বিপক্ষ নয়, নিজের দলের দিকেও দেখো, সব সময় লোককে ধরতে চাইছে।”

এক দিকের স্টাম্পে যখন এই ধরনের কথা উঠে আসছে, সেই সময় উল্টো দিকের উইকেটে কথা বলতে শোনা যায় অশ্বিনকে। তাঁর অভিযোগের তির দক্ষিণ আফ্রিকার সম্প্রচারকারী সংস্থার (সুপারস্পোর্ট) বিরুদ্ধে। তিনি বলেন, “অন্য ভাবে জেতার পথ খোঁজা উচিত সুপারস্পোর্টের।” মাঠের আম্পায়ার ইরাসমাসও অবাক হন। তিনি বলেন, “এটা অস্বাভাবিক।”

About রাসেল আহমেদ

Check Also

সকালে ঘুম থেকে উঠেই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির বার্তা পেয়েছি-: গেইল

ভারতের প্রজাতন্ত্র দিবসে ক্যারিবীয় ব্যাটিং-দানব ক্রিস গেইলকে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন নরেন্দ্র মোদি। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম টুইটারে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *