আমার যে স্কিল, এর সঙ্গে অন্য কোনো বোলারের তুলনা চলে না

২০০৯ সালে মাত্র ১৭ বছর বয়সে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে আবির্ভাব মোহাম্মদ আমিরের। এরপর নিজের প্রতিভা দিয়ে বিশ্ব মঞ্চে আলাদাভাবে নজর কাড়তে বেশি সময় লাগেনি তার। কিন্তু স্পট ফিক্সিং স্ক্যান্ডালে জড়িয়ে ক্যারিয়ারের মূল্যবান পাঁচটি বছর নষ্ট করেন এ বাঁহাতি পেসার।নিষেধাজ্ঞা কাটিয়ে জাতীয় দলে ফিরেও নিজের সামর্থ্যের জানান দিয়েছেন আমির। সবমিলিয়ে এখন পর্যন্ত ৩৬ টেস্টে ১১৯ উইকেট, ৬১ ওয়ানডেতে ৮১ উইকেট ও ৫০ টি-টোয়েন্টিতে ৫৯ উইকেট রয়েছে তার নামের পাশে। যা তার প্রতিভা ও সামর্থ্যের তুলনায় বেশ নগণ্যই বটে।

তবু আমিরের বিশ্বাস, পাকিস্তান জাতীয় দলে এখন তার মানের কোনো পেসার নেই। ২০২০ সালে সবশেষ পাকিস্তানের জার্সি গায়ে জড়িয়েছেন আমির। তার অবর্তমানে পাকিস্তানের পেস বিভাগ এগিয়ে নিচ্ছেন শাহিন শাহ আফ্রিদি, হাসান আলি, হারিস রউফ, নাসিম শাহরা।

স্থানীয় সংবাদমাধ্যমে দেওয়া সাক্ষাৎকারে আমির স্পষ্টই জানিয়েছেন, তার মতে পাকিস্তানের বর্তমানের যেকোনো পেসারের চেয়ে এগিয়ে রয়েছেন তিনি। সেটি শুধু পরিসংখ্যানে নয়, স্কিল ও সামর্থ্যের কথাই বলেছেন আমির।

তার ভাষ্য, ‘আমার মনে হয় না, অন্য কারও সঙ্গে আমার প্রতিযোগিতা রয়েছে। আমি একমাত্র বোলার ছিলাম যে আইসিসি র‍্যাংকিংয়ে জায়গা পেয়েছে। এমনকি বিশ্বকাপের পর দল থেকে বাদ যাওয়ার পরেও প্রায় দেড় বছর আমি র‍্যাংকিংয়ের ভালো অবস্থানে ছিলাম।’

আমির আরও বলেন, ‘আমার যে স্কিল রয়েছে, এর সঙ্গে অন্য কোনো বোলারের তুলনা চলে না। আমি মনে করি না, এখানে কোনো তুলনা সম্ভব। কারণ সবার আলাদা আলাদা ক্লাস রয়েছে। আর আমার ক্লাসে আমি একাই রয়েছি।’

About রাসেল আহমেদ

Check Also

আরব আমিরাতে এমন খারাপ দিন দেখেনি রশিদ খান

এবারের এশিয়া কাপের আগে সংযুক্ত আরব আমিরাতের মাটিতে টি-টোয়েন্টি খেলেছেন ১৯টি। কিন্তু এমন দিন দেখতে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *